ময়ূরকণ্ঠী বিনোদন ডেস্ক:

অবিবাহিতার এখন ফেসবুক নিয়ে বেশী ব্যস্ত থাকেন বিশেষ করে তার নিজের জীবন সঙ্গী খুজতে। পেয়েও যাচ্ছেন অনেকে। খুব ধুমধাম করে বিয়েও হয়ে যাচ্ছে। সাধারণ থেকে উচ্চ পর্যায় এমনকি কবি সাহিত্যিক, শিল্পীরাও। তেমনি এবার অভিনেত্রী ও উপস্থাপিকা নাফিসা কামাল ঝুমুর তার ফেসবুক বন্ধুকে জীবন সঙ্গী করে নিলেন নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাববিজ্ঞানে প্রভাষক সৈয়দ আসিফ হোসেনকে। তাদের ২৯ জুলাই রাতে বাগদান হয়ে গেল ঢাকার উত্তরার পার্টি সেন্টারে। এ বছরের শেষের দিকে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হবে।

এবার আসুন কিভাবে তাদের ফেসবুক ঘটক হলো। শুরুটা এমনি ছিলো-

নাফিসা কামাল ঝুমুরের কাছে প্রায় প্রতিদিন ভক্তদের মেসেজ আসে ফ্যানপেইজে। ফ্যানপেইজের মেসেজ আবার কি দেখে? তারকাদের সে সময় কই? কিন্তু ঝুমুর এদিক থেকে আলাদা। কিন্তু তাঁর ভক্তদের বিষয়গুলো খেয়াল করেন। একদিন এক ভক্ত মেসেজ পাঠালেন। তিনি রিপ্লাই করলেন। দেখা গেল ওপর প্রান্ত থেকে ফের মেসেজ ফের রিপ্লাই। এভাবেই কখন যে ওটাই আকর্ষণের জায়গা হয়ে গেছে বুঝতে পারেননি। ভক্তের প্রতি দুর্বল হয়ে পড়েছেন। এভাবেই কথাবার্তা থেকে অবশেষে বাগদান। সেই ভক্তের নাম আসিফ।

 আসিফের সঙ্গে শুক্রবার (২৯ জুলাই) রাতে ঢাকার উত্তরার পার্টি সেন্টারে ঝুমুরের বাগদান হয়েছে। রোজ গোল্ড ও হীরাখচিত আংটিবদল করেছেন তারা। অনুষ্ঠানে শুধু দুই পরিবারের স্বজন ও বন্ধুরা ছিলেন। বাগদানের সময় গোলাপি গাউন পরেন ঝুমুর। তিনি ফেসবুকে রসিকতার সুরে লিখেছেন, ‘দিনটি সত্যিই আমার ছিল। চিন্তা করো না তোমরা, আমি এখনও অবিবাহিত!’

ঝুমুর বলেন, ”প্রথমে আসিফ শুধু আমার ভক্ত ছিল। একবছর বোঝাপড়ার পর বেশ ভেবেচিন্তে বাগদানের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। ভক্ত যদি জীবনসঙ্গী হয় ক্ষতি কি! আমরা বিয়ে করবো এ বছরের শেষ দিকে।”

mktelevision.net/বিনোদন ডেস্ক

Leave a Reply

Your email address will not be published.

*